1. admin1@newsbulletin.info : admi :
  2. mohamamdin95585@gmail.com : atayur :
  3. sawontheboss4@gmail.com : Toufiq Hassan : Toufiq Hassan
  4. zilanie01@gmail.com : Rumie :
ডি’*ভো’*র্সে’র পর মে’*য়ে’রা এ’কা থাকতে পা’রে না কেন
মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ০৭:৩৮ পূর্বাহ্ন

ডি’*ভো’*র্সে’র পর মে’*য়ে’রা এ’কা থাকতে পা’রে না কেন

Desk Report
  • Update Time : মঙ্গলবার, ২ মার্চ, ২০২১
  • ৯৯ Time View

হ্যাঁ, ঠিক এই প্রশ্নটিই আমি করেছিলাম আমা’র প’রিচিত-অ’প’রিচিত অসংখ্য মা’নুষকে। আমা’দের স’মাজের অ’ত্যন্ত প্র’চ’লিত একটি ধা’রণা হচ্ছে- “ডিভোর্সের প’র মে’য়েরা এ’কা থাকতে পারে না!”

শুধু ধা’রণা হয়, বলা যায় ব’'দ্ধমুল ধা’রণা।এই একবিংশ শতাব্দীতে এসেও অসংখ্য মে’য়ে এই ধা’রণাটির কারণে স’ম্পূর্ণ জীবনটি কা’টিয়ে দেন ক’ষ্ট আর হ’তাশায়।কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে, এই ধা’রণাটি কতটুকু সত্যি? বা এই ধা’রণাটা নিয়ে কী’ ভাবেন বর্তমা’নের না’রী-পুরু’ষ?

যাদের কখনো ডিভোর্স হয়নি বা খুব কাছের কারো ডিভোর্স দেখা হয়নি… তাঁরা হয়তো কখনোই বুঝতে পারবেন না মূল অবস্থাটি। কিন্তু যারা গিয়েছেন বা এখনও যা’চ্ছেন এই প’রিস্থিতির মাঝ দিয়ে? হ্যাঁ,একমাত্র তারাই বলতে পারবেন যে সত্যিকারের প’রিস্থিতিতি কেমন।আর তাই আমা’র প্রশ্নটি ছিল এমন কয়েকজ’ন না’রীর কাছে, যিনি ডিভোর্স প’রবর্তী স’ময়টি মোকাবেলা করেছেন বা খুব কাছের কারো ডিভোর্স দে’খেছেন।

আমি জানতে চেয়েছিলাম এই ব্যা’পারে তিনি কী’ মনে করেন, জানতে চেয়েছিলাম তাঁদের জীবনের ঝ’ড়ঝাপটা গু'’লোর ক’থা। কী’ জবাব মি’ল? তাঁদের মন্তব্যগু'’লো নাহয় হুবহু-ই তুলে দিচ্ছি পাঠকের জ’ন্য। বাকিটা পাঠক নিজ বি’বেক দিয়ে বি’বেচনা করবেন।

নাজিয়া মুশতারী (৩০) আমি থাকি আম্মুর সা’থে.. সেরকমভাবে কোন স’মস্যায় পড়িনি, বিকজ অফ আমা’র ভ’য়াবহ অ্যারো’গেন্ট ইমেজের জ’ন্য। এবং এটা আমি নিজেই বানিয়েছি। আমা’র ডিভোর্স হয়ে গেছে আমি অচ্ছুত হয়ে গেছি, আমা’র কেউ নাই- এরকম লুতুপু’তু ইমেজ বানালে যে কেউ বি’র’ক্ত করতে আস’বে।আর স’বচে মজার বি’ষয় হচ্ছে আমা’র ব্যা’পারটা থা’না পু’লিশ জে’ল অব্দি গড়িয়েছিল, কিছুটা হলেও শা’স্তি দিতে পেরেছিলাম,

তাই স’বাই এই ভ’য়টাও পায় কী’ভাবে লাল দা’লানে চা’লান দিতে হয় সেটা আমি জানি,তাই আমাকে না ঘাটানোই ভাল।আর এ’কা থাকার আরেকটা বি’ষয় নিয়ে স’মস্যা হয় সেটা হলো বাসাভাড়া কেউ দিতে চায়না,

আবার বাচ্চার স্কুলে অন্য ম’হিলাদের অযথা কৌতুহল এবং স’ব স’ময় নিজেকে একটু সাবধানে রাখতে হয় যাতে কেউ গু'’’জব রটাতে না পারে। তবে এগু'’লাও মেন্টেন করা যায়।আম’রা কেউ ছোট বাচ্চা তো না যে নিজের অ’সুবি’ধা বুঝবোনা। এ’কা থাকার স’বচে বড় শর্ত হচ্ছে স্বাবলম্বী হওয়া, স্বাবলম্বী যে কেউ এ’কা থাকতে পারে। কারো অ’নুগ্রহে বা অধীনে বাঁচতে গেলেই এ’কা থাকা’টা আর হয়ে ওঠেনা। সাবরিনা খান (৩৪), ব্যাংকারআমি ঠিক এ’কা না। মা সা’থে থাকে। দোকা থাকা অবস্থাই মা আমা’র সা’থে থাকতো।

তবে মা আমাকে আবার বি’য়ে করতে আ’গ্রহী নই ব’লে ফ্ল্যাট কিনতে ব’লে। সে স’হ স’বাই ভ’য় দেখায় মা চিরজীবন থাকবে না, তখন আমা’র থাকার জায়গা থাকবেনা। আমি ভাবছি শুধু থাকার জায়গার জ’ন্য কি বি’য়ে করা লাগবে! শাফিয়া (২৮), গৃ’হিণী স’মাজের মা’নুষ তো এ’কা থাক’লেও বলবে, দোকা থাক’লেও বলবে। এ’কা বা দোকা থাকা স’ম্পূর্ণ নিজস্ব ব্যা’পার হওয়া উ’চি’ৎ। তবে স’মাজের ক’থাটা একেবারেই ফে’লে দেওয়ার মতো ও নয়। কারণ-

১. প্র’তিটা মা’নুষেরই একজ’ন সংগী লাগে। যে সুখে দু:খে পাশে থাকবে। মা’নছি মে’য়েরা অনেক স্ট্রং, তারপ’রও, লাগে কিন্তু একজ’নকে। শারী’রিক মা’নসিক চা’হিদা পূরণের জ’ন্য। অনেকেই হয়তো শারী’রিক চা’হিদা উপেক্ষা করে থাকতে পারে (রেশিওটা অনেক কম কারণ শারী’রিক স’ম্প’র্ক একবার হলে সেটাকে অগ্রাহ্য করাটা টাফ), অনেকে না পারা’য় অ’নৈতিক স’ম্প’র্কে লি’’'প্ত হয়।আবার কেউ হয়তো মা’নসিক সা’পোর্ট এর জ’ন্যও এ’কা থাকতে চায় না।

২. এই স’মাজের মা’নুষই এ’কা থাকতে দিবে না। এ’কা মে’য়ে সাব’লেটে থাক’লেও খা’রাপ, এ’কা থাকে। আবার চাকরি খুঁ’জতে গেলেও আ’গে বি’ছানায় যাওয়ার প্রস্তাব পায়….তো বেশিরভাগ মা’নুষইযেহেতু সু’যোগ সন্ধানী তারা তো এভাবেই দেখবে যে এ’কা মা’নেই এ’কা না, নিশ্চয়ই তার অ’বৈধ স’ম্প’র্ক আ’ছে। এই বাঁকা চোখটা এ’ড়িয়ে ফাইট করতে ফ্যামি’লি সা’পোর্ট লাগে যেটা অনেকেই পায়না।

৩. বেশিরভাগ প’রিবারের কাছেই এখনো ডিভোর্সি মে’য়ে মা’নেই বোঝা। তাকে যে কোন ধরনের সা’পোর্ট দিতে তারা নারা’জ।বাট আমা’র নিজের যা মনে হয়েছিলো এবার তাই বলি। প্র’তিটা মে’য়েই নিজের একটা সংসারের স্বপ্ন দে’খে। খুবই স্ট্রং একটা কারণে আমা’র প্রথম বি’য়েটা টেকেনি। ৭ বছর চেষ্টা করেছি টেকানোর জ’ন্য।বাট যেটা হওয়ার নয় সেটা হয়না।প্রথমে ভেবেছিলাম স্বাবলম্বী হই। বাট যেখানেই জবের জ’ন্য যেতাম, আকারে ইংগিতে আমাকে বি’ছানায় শোয়ার আভাস দিতো।

নিজের প্র’তিই একস’ময় ঘেন্না লাগা শুরু হলো, যে আমা’রই নিশ্চয় কিছু একটা প্রব’লেম, নাহলে স’বাই এই নজরেই কেন দেখবে।তাই এ’কা থাকার চি’ন্তা বাদ দিয়ে নতুন করে সংসার নিয়ে ভাবতে শুরু করেছিলাম কারণ বি’য়ে ভাংগাতে তো আমা’র দোষ ছিলো না। স্বাভাবিক একটা জীবন চেয়েছিলাম। কারণ তখন হয়তো ব’য়স কম ছিলো। বাট একটা স’ময় ব’য়স বাড়বে।শেয়ারিং কেয়ারিং এর জ’ন্য হলেও জীবনে কাউকে প্রয়োজ’ন।

ছোট ছোট স্বপ্ন পূরণের স্বাদ শেয়ার করার জ’ন্য হলেও কাউকে প্রয়োজ’ন। আর আমা’দের ধ’র্মেও কোথাও লেখা নেই যে ডিভোর্স হলে আর বি’য়ে শাদি করা যাব'’ে না।বরং সংসারের তাগিদই দেয়া আ’ছে। ব্য’ক্তির স’র্ব প্রকার শান্তির জ’ন্যই আমা’র মনে হয় এ’কা থাকা’টা ঠিক নয়। তবে স’বারই এমনটা মনে হবে তা নয়, কারো সা’পোর্ট পাই’নি তাই হয়তো এমন মনে হয়েছে, ফ্যামি’লি সা’পোর্ট পেলে হয়তো অন্যরকম ভাবতাম। আসলে যার যার ভাবনা তার তার কাছে যেটা ডিপেন্ড করে সিচুয়েশন এর উপ’র।

মোহসিনা খান (৩৩), উত্তরাআমি তো এ’কা নই, পুরো ফ্যামি’লির সা’থে থাকি আ’পু.. মা স’বচেয়ে বেশী সা’পোর্ট দেয় ব’লে দরকার নাই বি’য়ে করার .. নিজেকে প্র’তিস্ঠিত কর জীবনে এ পুরু’ষ দরকার নাই.. আমা’র ছোট ভাই আমা’রে সারা’জীবন আ’গলে রাখতসে এমন করে যেন আমি তার ছোট্ট বোন.. আমা’র ঐ কূৎসিত জীবনের চাইতে এই জীবন আমা’র অনেক সুখের আনন্দের ..আমি ভাল আ’ছি। নাজিয়া ইস’লাম (২৬)

আমি ব্রোকেন ফ্যামি’লির মে’য়ে,অনেক স্ট্রাগল করে এ প’র্যন্ত আশা..আমা’র মা ডিভোর্সড না হওয়া সত্ত্বেও সেপারেশনে থেকেছেন।আমা’র নানুবাড়ীতে থেকে আমাকে সিংগেল মা’দারের মতন করে বড় করেছেন..আমা’র ২বছর ৯ মা’স ব’য়স থেকে..তবে এখানে সেপারেশনের ডিসিশনে যাওয়ার আ’গে অবশ্যই অর্থনৈতিক স্বচ্ছলতার ব্যা’পারে নিশ্চিত হওয়া প্রয়োজ’ন,কারণ যে যাই বলুক টাকা ছা’ড়া জীবনযাপন আসলেই অস’ম্ভব। আর হ্যাঁ, বিবা’হিত হয়েও প’র্যা’'প্ত অর্থের সংস্থান করতে পারছি না ব’লে কিছু কিছু ক্ষেত্রে এখনো বা’বা।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
News Bulletin © All rights reserved 2021
Develper By ITSadik.Xyz