1. [email protected] : admi :
  2. [email protected] : admin admin : admin admin
  3. [email protected] : atayur :
  4. [email protected] : Toufiq Hassan : Toufiq Hassan
  5. [email protected] : News Reporter :
শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে এইমাত্র যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী
বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ০১:১২ অপরাহ্ন

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা নিয়ে এইমাত্র যা বললেন শিক্ষামন্ত্রী

Desk Report
  • Update Time : রবিবার, ২৮ জুন, ২০২০
  • ১০৭ Time View

করো’নার প্রকো'প না কমা পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা হবে না বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি। শনিবার এক ভার্চুয়াল আলোচনায় একথা জানিয়েছেন তিনি। তিনি বলেন, এজন্য শিক্ষার্থীদের যে ক্ষ'তি হবে তা পুষিয়ে নিতে নানা ধরনের পদ'ক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে। কবে নাগাদ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া সম্ভব হবে সে বি'ষয়ে এখনই কোনো ধারণা দিতে পারেননি শিক্ষামন্ত্রী।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, আমর'া জানি না আগস্টে কি খুলতে পারব, সেপ্টেম্বরে কি খুলতে পারব। শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার ব্যাপারে সবচেয়ে বড় ব্যাপারটি হল- যখন একজন আমর'া কেউ রাস্তায় বের হই, নিশ্চয়ই ঝুঁকি নিয়ে বের হই। কিন্তু আমর'া যখন একটা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যাব', সেখানে শিক্ষার্থীদের যে বয়স তাদের অধিকাংশের ক্ষেত্রে হয়ত তারা যে আ’ক্রা'’ন্ত হয়েছে তার বহিঃপ্রকাশ থাকবে না।

কিন্তু তারা তাদের পরিবারে বয়স্ক বা অসুস্থ যারা আছেন তাদের আরও বেশি ঝুঁকির মধ্যে ফেলবে। আমর'া কিন্তু তাদের বিরাট একটা ঝুঁ’কির মধ্যে ফেলে দেব। তিনি বলেন, এই কোটি কোটি শিক্ষার্থী, কোটি কোটি পরিবার, তাদেরকে নিশ্চয়ই আমর'া এই স্বাস্থ্য ঝুঁ’কির মধ্যে ফেলতে পারি না। সেজন্য আমা'দের শিক্ষাটাকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে সেটি ভাবতে হবে।

কিন্তু এই মুহূর্তে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার মতো কোনো অবস্থাই নেই। আমা'দের অবস্থা পর্যবেক্ষণ করতে হবে, তারপরে বুঝব যে কবে খোলা যাব'ে। বছরে ১৪০-১৪২ দিনের বেশি পাঠদান করানো যায় না জানিয়ে দীপু মনি বলেন, এত ধরনের ছুটি ও অনুষ্ঠানাদি থাকে। করো'নার কারণে যে দিনগু'লো হারিয়ে ফেলেছি তখন আমা'দের বাকি ছুটিগু'লো বাদ দিয়ে হলেও শিক্ষার্থীদেরকে শিক্ষা-গবেষণায় ঠিক জায়গায় রাখতে পারি, সেটি আগামী শিক্ষাবর্ষে চেষ্টা করব।

ইরাব সভাপতি মুসতাক আহম'দের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মাহবুব হোসেন, গণস্বাক্ষরতা অ'ভিযানের নির্বাহী পরিচালক রাশেদা কে চৌধুরী, ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের ইমিরিটাস অধ্যাপক মনজুর হোসেন, ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজের সহকারী অধ্যাপক ফারহানা খানম, ইরাবের সাধারণ সম্পাদক নিজামুল হক প্রমুখ বক্তব্য দেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
News Bulletin © All rights reserved 2021
Develper By ITSadik.Xyz