1. [email protected] : admi :
  2. [email protected] : admin admin : admin admin
  3. [email protected] : atayur :
  4. [email protected] : Author :
  5. [email protected] : Toufiq Hassan : Toufiq Hassan
  6. [email protected] : News Reporter :
জাপানে জুয়ার আসর ভেঙ্গে নির্মিত হচ্ছে সর্ববৃহৎ মসজিদ
বৃহস্পতিবার, ২৪ নভেম্বর ২০২২, ০৬:৫১ অপরাহ্ন

জাপানে জুয়ার আসর ভেঙ্গে নির্মিত হচ্ছে সর্ববৃহৎ মসজিদ

Desk Report
  • Update Time : শুক্রবার, ৩ জুলাই, ২০২০
  • ১৪৭ Time View

টোকিও শহরের ঠিক গা ঘেঁষেই সাইতামা প্রিপেকচারের কোশিগায়া সিটির গামো স্টেশন এলাকায় একটি অ’ত্যাধুনিক বড় জুয়ার আসর (পাচিঙ্কু) ভে'ঙ্গে তৈরী করা হচ্ছে

দৃষ্টিনন্দন ম’সজিদ কমপ্লেক্স। এই জুয়ার আসর পাচিঙ্কুর ভবনসহ জায়গাটি ক্রয় করতে প্রায় ১৮০,০০০,০০০ জা’পানি ইয়েন বা ১৬ লাখ ৬২ হাজার মা’র্কিন ডলার খরচ হয়েছে। টোকিও শহর থেকে গামো স্টেশন ট্রেনে ২০ মিনিট।

গামো স্টেশন থেকে ১০ মিনিটের হাঁটার দূরত্বে অ’ত্যাধুনিক এই ম’সজিদ কমপ্লেক্সটির কার্যক্রম শিগগিরই শুরু হচ্ছে। প্রায় দেড় হাজার স্কয়ার মিটার আয়তনের এই বিশাল

কমপ্লেক্সটি কার্যক্রম শুরু হলে এটি হবে জা’পানের সর্ববৃহৎ ম’সজিদ কমপ্লেক্স। এখানে একসাথে অর্ধ শতাধিক গাড়ি পার্কিং করা যাব'ে। এছাড়াও প্রয়োজনে আশপাশে আরো শতাধিক কয়েন গাড়ি পার্কিংয়ের ব্যবস্থা রয়েছে।

এখানে থাকছে শিক্ষা, গবেষণা, অ’তিথিদের আবাসন ও ইস’লামি সংস্কৃতি বিনিময়ে ইস’লামিক কালচারাল ফাউন্ডেশন ও দাওয়াতি বিভাগ। সকল ধ’র্ম-বর্ণের মানুষ বিশেষ করে জা’পানিরা ২৪ ঘন্টা ইস’লামি সংস্কৃতি ও মুল্যবোধ স’ম্পর্কে জ্ঞান লাভ করতে

পারবে। এখানে একসাথে প্রায় ২ হাজার লোক নামাজ আ'দায় করতে পারবে। সেইসাথে রয়েছে গাড়ি পার্কিংয়ের বিশাল স্টেশন। প্রবাসী মু’সলমান বিশেষ করে বাংলাদেশীদের সহযোগিতায় জা’পান সরকার অনুমোদিত সর্ববৃহৎ এ ইস’লামিক সেন্টারটি সারা জা’পানব্যাপী দাওয়াহ কার্যক্রমের মূল কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হবে।

এটির নাম দেয়া হয়েছে ‘বায়তুল আমান ম’সজিদ কমপ্লেক্স’। শিগগিরই বিশাল এ ম’সজিদটি প্রথম ও দ্বিতীয় তলা নিয়ে কার্যক্রম শুরু হচ্ছে। পরে আর্থিক সাম’র্থ ও সময় নিয়ে ১০ তলা বিশিষ্ট পুর্না'ঙ্গ কমপ্লেক্স করার পরিকল্পনা রয়েছে। জা’পানের সর্ববৃহৎ ম’সজিদ প্রতিষ্ঠার জন্য সহযোগিতার অনুরোধ জানিয়েছেন ইস’লামিক কালচারাল

ফাউন্ডেশন জা’পান। জানা যায়, বিশাল এ ম’সজিদের কার্যক্রমের পাশাপাশি ইস’লামি শিক্ষা, কুরআন গবেষণা, জা’পানিজদের জন্য সমৃ'দ্ধ লাইব্রেরি, ইন্টারন্যাশনাল ইস’লামিক স্কুল, পূর্ণা'ঙ্গ হিফজুল কুরআন মা'দরাসা চালু করা হবে।

এছাড়া ধ’র্মীয় বিভিন্ন আচার অনুষ্ঠান, ইস’লাম ও বর্তমান প্রেক্ষাপটের উপর সেমিনার-সিম্পুজিয়াম, শি’শু ও বড়দের পৃথক কুরআন শিক্ষা কার্যক্রম ও জা’পানিদের জন্য ইংরেজি ও জা’পানি ভাষায় ইস’লামি জ্ঞান লাভের বিশেষ বিভাগ থাকছে। এছাড়াও বিভিন্ন দেশ থেকে আগত প্রবাসী মু’সলিম কমিউনিটিকে সংগঠিত করে তাদের মাঝে প্রকৃত ইস’লামী জীবন বিধানের দায়িত্বানুভূ'তি জাগিয়ে তোলার সুমহান ব্রত নিয়ে কাজ করবে প্রতিষ্ঠানটি।

পাশাপাশি সামাজের কল্যাণমূলক বিভিন্ন ধরণের সামাজিক কাজ বাস্তবায়ন করবে। ম’সজিদ কমপ্লেক্সটিতে বর্তমানে যা থাকছে- অ’ত্যাধুনিক সুবিধা সম্বলিত দোতলা বিশিষ্ট

ভবনটিতে পুরুষ-নারীদের জন্য পৃথক অজুখানা ও ৫ ওয়াক্ত নামাজের ব্যবস্থা। সাধারণ মু’সলিম ও জা’পানিজদের জন্য সমৃ'দ্ধ লাইব্রেরি, ইন্টারন্যাশনাল ইস’লামিক স্কুল, পূর্ণা'ঙ্গ হিফজুল কুরআন মা'দরাসা, জা’পানিজ ও অন্যদের জন্য ইস’লামি দাওয়াহ বিভাগ,

বার্ষিক সাংস্কৃতি বিনিময়ে কারি ফেস্টিভ্যাল ও কোরিওকাই ফর জা’পানিজ, ইস’লামিক শিক্ষা ও কুরআন গবেষণা কেন্দ্র, রামা'দান-ঈদ, নিকাহ কার্যক্রম,ইস’লামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র, স্পেশাল চাইল্ড কেয়ার ও এক্টিভিটি, কাউন্সিলিং, ক্বিরাত-রচনা-কুইজ প্রতিযোগিতা, সীরাত মাহফিল, বিভিন্ন দেশ থেকে আগত মেহমানদের আবাসন ও বিদেশি পর্যট’কদের পরিদর্শন, মৃ’তদে'হ গোসলের ব্যবস্থা ও পর্যা'প্ত কার পার্কিং স্টেশন। উল্লেখ্য, জা’পানে প্রতিবছর বাড়

ছে ম’সজিদ।

বাড়ছে মু’সলমানের সংখ্যা। জা’পানের রাজধানী টোকিওসহ সারাদেশে বর্তমানের প্রায় তিন শতাধিক ম’সজিদ রয়েছে। শুধুমাত্র টোকিওতেই ২ শতাধিক ম’সজিদ ও মু’সাল্লা (নামাজঘর) আছে। ১৯৭০ সালের দিকে টোকিওতে ম’সজিদের সংখ্যা ছিল মাত্র দু’টি।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
News Bulletin © All rights reserved 2021
Develper By ITSadik.Xyz