1. [email protected] : admi :
  2. [email protected] : admin admin : admin admin
  3. [email protected] : atayur :
  4. [email protected] : Toufiq Hassan : Toufiq Hassan
  5. [email protected] : News Reporter :
ভারতে আর একজন মুসলিম নির্জাতন হলে তাদেরকে দুবাই ঢুকতে দেওয়া হবেনা
সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ১১:৫০ পূর্বাহ্ন

ভারতে আর একজন মুসলিম নির্জাতন হলে তাদেরকে দুবাই ঢুকতে দেওয়া হবেনা

Desk Report
  • Update Time : বুধবার, ২০ মে, ২০২০
  • ৩৯০ Time View

সংযুক্ত আরব আমিরাতের (ইউএই) রাজপরিবারের স'ঙ্গে যুক্ত প্রিন্সেস হে'ন্দ আল কাসেমি গত কয়েক স'প্তাহ ধরে তার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের টাইমলাইনে বিদ্বেষপূর্ণ ও ইসলামোফোবিক মন্তব্যের বিরু'দ্ধে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে যাচ্ছেন। এসব মন্তব্যের বেশিরভাগ আসছে আরব আমিরাতে কর্মর'ত ভারতের হিন্দু ধ'র্মাবলম্বী নাগরিকদের কাছ থেকে। -সাউথ এশিয়ান মনিটর, সিএনএন, নিউজ এইট্টিন এতে উদ্বি'গ্ন দেশটিতে নিযুক্ত ভারতীয় রাষ্ট্রদূত পবন কাপুর। ভারতীয় নাগরিকদের সম্বন্ধে বলেন যে, বৈষম্য আমা'দের নৈতিক বুনন ও আইনের শাসনের পরিপন্থী এবং আমিরাতে বাস করা ভারতীয়দের এটা মনে রাখতে হবে।

বিশেষ করে কিছু ব্যক্তির মন্তব্যের কারণে একই স'ঙ্গে বেদনা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেন এই রাজকন্যা। তিনি বলেন, আমিরাত ও ভারতের সম্পর্ক শত বছরের পুরনো। কিন্তু এই প্রবণতা নতুন। ভারতীয়দের কাছ থেকে আগে কখনো এমন বিদ্বেষমূলক আচরণ আমর'া পাইনি। প্রিন্সেস হে'ন্দ যদিও স্বীকার করেন যে, কিছু ব্যক্তির এ ধরনের মন্তব্য আরব আমিরাতে কর্মর'ত বিপুল সংখ্যক ভারতীয়ের প্রতিনিধিত্ব করে না কিন্তু তিনি বেশ কায়দা করে ভারতীয়দের জন্য একটি হুঁশিয়ারি বার্তা দিয়েছেন এভাবে: শুধু মুসলিম ও খ্রিস্টান আমর'া কাদেরকে আমিরাতে জায়গা দেবো সেটা বেছে নিতে ভারত কি আমা'দেরকে বাধ্য করছে? আমর'া এই প্রশ্ন তুলিনি।

আমা'দের কাছে তারা সবাই ভারতীয়। তারা ভারতীয় মুসলমান বলে আমর'া শুধু তাদের স'ঙ্গে কাজ করবো ,এভাবে কাউকে আমর'া আলাদাভাবে ভাগ করিনি। দূতাবাসের ওয়েবসাইটের তথ্য অনুযায়ী আরব আমিরাতে প্রায় ৩৫ লাখ ভারতীয় রয়েছে, যারা দেশটির জনসংখ্যার তিন ভাগের এক ভাগ। ভারতীয়রাই সেখানে সবচেয়ে বড় বিদেশী জাতিগোষ্ঠী। প্রিন্সেস হে'ন্দ হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, আমি যদি প্রকাশ্যে বলি যে ভারতীয় হিন্দুদের আমিরাতে মেনে নেয়া হবে না, তাহলে ভারতীয়দের কেমন লাগবে? প্রতিবছর আমিরাত থেকে প্রায় ১৪ বিলিয়ন ডলার রেমিট্যান্স ভারতে যায় – গত বছরও গিয়েছে। ভাবুন, সেটা বন্ধ হয়ে গেলে কেমন হবে? ভারতীয়রা এখানে কঠোর পরিশ্রম করে। আমি মনে করিনা তারা ওইসব লোককে পছন্দ করবে যারা তাদের ভুল প্রতিনিধিত্ব করছে।

তিনি কোন রাজনৈতিক ব্যক্তি নন উল্লেখ করে প্রিন্সেস বলেন যে এ কারণে তার উদ্বেগ নিয়ে ভারত সরকারের স'ঙ্গে কথা বলেননি। তবে তার স'ঙ্গে সাবেক ভারতীয় রাষ্ট্রদূত নবদীপ সুরির যোগাযোগ রয়েছে। তিনিও উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছেন যে প্রিন্সেসের বক্তব্য ‘জোরালো ও স্পষ্ট’। প্রিন্সেস বলেন, তার দেশে বিদ্বেষমূলক বক্তব্য অবৈ'ধ। তিনি ঘৃণা থামাতে তার কণ্ঠ সরব করে যাব'েন। কারণ তিনি ভারতের বন্ধু।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
News Bulletin © All rights reserved 2021
Develper By ITSadik.Xyz